ল্যটিন আমেরিকান আবহাওয়া অধিদপ্তর একটি বিশেষ রেসলিং দলের সমর্থকদেরকে ২০৯৯ সাল পর্যন্ত ৭ নম্বর জন্য মহা বিপদ সংকেত দেখিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছে। তারা জানায়, পাগল সমর্থিত রেসলিং দলের খেলোয়ারগন ফুটবল খেলতে গিয়ে ৮ জুলাই বিষাক্ত ফরমালিন দেয়া তাজা ৭ গোল হজম করতে না পেরে ঐ রাতে কোন সমর্থকই ঘুমাতে পারেন নাই। পরে ঘুমের ঔষধ হিসেবে কুড়িয়ে পাওয়া তালপাতার সেপাই এর মাধ্যমে ৯ জুলাই ১৪ গোল আর্জেন্টিনার ঘাড়ে চাপাতে গিয়ে নিজেরাই আরো অন্যের গোলের নিচে চাপা পড়ে শরনার্থী অবস্থায় নিদ্রাবিহীন মানবেতর জীবন যাপন করছে।

 

সেই সাথে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে যে ১২ জুলাই রাত ২:০০টায় সেই দলের আকাশে আরও ৮/১০ গোলের একটি ভয়াভহ ঝড় হানা দিতে পারে। ঝড়টি এখন নেদারল্যান্ড থেকে প্রচন্ড বেগে ল্যাটিন আমেরিকার কালমানিকের হলুদ দেশের দিকে অগ্রসর হচ্ছে।

 

আগামী ১৪ জুলাই পর্যন্ত আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে এই বিশেষ দলের সমর্থকগনকে আগামী মঙ্গলবার পর্যন্ত নির্ঘুম রাত কাটাতে হবে যার ফলে পেটে অতিরিক্ত গ্যাস হতে পারে যা দেশের প্রাকৃতিক গ্যাসের অভাব মোচনে ব্যাপক সহায়ক হবে।

 

তবে এ ব্যাপারে হলদে জ্যোতিশীরা বিষয়টির সাথে ভিন্ন মত পোষন করে বলেছেন আগামী ২০১৮ সাল পর্যন্ত এই দলের সমর্থকগন ঘুমের মধ্যে ভয়াভহ দুঃস্বপ্ন দেখবেন এবং হলুদ রং দেখলে ভয়ে চিৎকার করে উঠবেন। এমন কি তাদের অনেকেই তরাকারীর মধ্যে হলুদ খাওয়া ছেড়ে দিবেন।

 

তবে ঐ দলের সমর্থকদের পরিবারের লোকজন বিষয়টি স্বীকার করে বলেছেন ঘুমের মধ্যে তারা প্রায় সময়ই ’বাঁচাও!! হলুদ কার্ড!! বাঁচাও!!’ বলে চিৎকার করে উঠেন।

 

এ বিষয়ে ব্রাসিলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন রাসায়নবিদ জানিয়েছেন, ব্রাজিলের ঘাড়ে চাপিয়ে দেয়া ৭টি গোলের মধ্যেই হিটলারের নাৎসি ফ্যাক্টরীর তৈরী বিশেষ ধরনের চিরস্থায়ী ফরমালিন মেশানো থাকায় গোল গুলিতে কোন ভাবেই পঁচন ধরানো সম্ভব হবে না। এমনকি পতন না হওয়া পর্যন্ত বিষাক্ত ৭ (that means 7) গোলের বোঝা মাথায় নিয়ে হলুদ সিগন্যাল এর উপর দিয়ে হেলেদুলে ব্রাজিলকে লাল (পতনের) সিগন্যালের দিকে চলতে হবে।

 

silva

 

{বি:দ্র: আশা করছি কেউ লেখাটি মনে কষ্ট নিবেন না। কারন এরকম বিশ্ব নন্দিত ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, জার্মানির ফুটবল খেলা দেখার আনন্দ, আলোচনা, সমালোচনা এবং এরকম বিতর্কই আমাদেরকে এখনো স্বপ্ন দেখায় একদিন আমার প্রিয় বাংলাদেশ দল এই ফুটবলের মহা আয়োজনে অংশ নিয়ে বিশ্ব মাতাবে।}

লেখক পরিচিতি
এম, এইচ, মিনহাজ
আমি বিভিন্ন বাংলা/ইংরেজী ব্লগের একজন অনিয়মিত এবং সখের ব্লগার। তবে নিয়মিত লেখার ইচ্ছে থাকলেও অনিয়মিত ভাবেই পাঠকদের বিরক্ত করে থাকি। আমার লেখার বিষয়বস্তু- যা মনে আসে তাই। কারও কাছ থেকে বাহবা পাওয়ার জন্য লিখি না। কেউ আমার লেখা পছন্দ করলে খুশি হই তবে অপছন্দ করলেও লেখালেখি বন্ধ করার কোন অবকাশ নেই, কারন আমি একান্ত সখের বশেই লেখালেখি করি।
আমার ব্লগ সমুহ:

আপনার মতামত দিন


সিকিউরিটি কোড
রিফ্রেশ